ঢাকা ১ আষাঢ় ১৪৩১, শনিবার, ১৫ জুন ২০২৪

‘উন্নয়নের অগ্রযাত্রায় রূপকল্প ২০৪১ বাস্তবায়নে বিসিকের ভূমিকা’ শীর্ষক আলোচনাসভা

প্রকাশ: ১১ জুন ২০২৪, ০২:৪২ পিএম
আপডেট: ১১ জুন ২০২৪, ০৩:৪৩ পিএম
‘উন্নয়নের অগ্রযাত্রায় রূপকল্প ২০৪১ বাস্তবায়নে বিসিকের ভূমিকা’ শীর্ষক আলোচনাসভা
ছবি: সংগৃহীত

বাংলাদেশ ক্ষুদ্র ও কুটির শিল্প কর্পোরেশনের (বিসিক) আয়োজনে ‘উন্নয়নের অগ্রযাত্রায় রূপকল্প ২০৪১ বাস্তবায়নে বিসিকের ভূমিকা’ শীর্ষক আলোচনাসভা ও ‘কারুশিল্প পুরস্কার ১৪৩০’ বিতরণ অনুষ্ঠান সম্পন্ন হয়েছে।  

সোমবার (১০ জুন) রাজধানীর প্যান প্যাসিফিক সোনারগাঁও হোটেলের ওয়েসিস মিলনায়তনে এ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন শিল্পমন্ত্রী নূরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ূন। 

বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন শিল্প মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব জাকিয়া সুলতানা। 

মূল প্রবন্ধ উপস্থাপক হিসেবে ছিলেন, ইস্ট ওয়েস্ট ইউনিভার্সিটির মুখ্য উপদেষ্টা এবং বাংলাদেশ ব্যাংকের সাবেক গভর্নর ড. মোহাম্মদ ফরাসউদ্দিন। 

অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন বিসিকের চেয়ারম্যান সঞ্জয় কুমার ভৌমিক।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে শিল্পমন্ত্রী বলেন, ‘রূপকল্প ২০৪১ বাস্তবায়নে ক্ষুদ্র ও কুটির শিল্পের অবদান খুবই গুরুত্বপূর্ণ। বিসিক এ ক্ষেত্রে কার্যকর ভূমিকা পালন করছে, যা দেশের আর্থ-সামাজিক উন্নয়নকে ত্বরান্বিত করছে।’ 

বিসিকের উদ্যোগে দেশের কারুশিল্পের উন্নয়ন ও আন্তর্জাতিক বাজারে প্রতিযোগিতায় সক্ষমতা বৃদ্ধি পাবে বলে তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

জাকিয়া সুলতানা বিসিকের সাফল্যের ভূয়সী প্রশংসা করে বলেন, ‘বিসিকের উদ্যোগে দেশের কারুশিল্পীদের মধ্যে তাদের কাজের দক্ষতার স্বীকৃতিস্বরুপ কারুশিল্প পুরস্কার প্রদান করা হয়েছে। এই পুরস্কার কারুশিল্পীদের উৎসাহ প্রদানের পাশাপাশি আবহমান বাংলার সৃজনশীল কারুশিল্পের ঐতিহ্যকে ধরে রাখার প্রয়াসকে ত্বরান্বিত করবে।’ 

মূল প্রবন্ধে ড. মোহাম্মদ ফরাসউদ্দিন বলেন, ‘শিল্পায়নে কর্মসংস্থান ও জিডিপি প্রবৃদ্ধি অর্জন অব্যাহতভাবে জরুরী। আনুমানিক ৪০ থেকে ৪২ লাখ সিএমএস উদ্যোক্তাকে চিহ্নিত করে বিসিক এর অধীনে পর্যায়ক্রমে প্রকল্প মান, প্রকল্প তৈরী, বাজার সমীক্ষা, অর্থায়ন (সহজশর্তে) প্রচেষ্টা ও দেশে-বিদেশে বাজারজাতকরণ এবং মূল্যায়ন ও সমীক্ষা সম্পর্কে বিশ্ববিদ্যালয়সমূহে যুক্তরাষ্ট্রের আদলে ইনকিউবেটর স্থাপন করা সমীচিন হবে।’

সভাপতির বক্তব্যে বিসিক চেয়ারম্যান বলেন, ‘বঙ্গবন্ধুর হাতে গড়া প্রতিষ্ঠান বিসিক উদ্যোক্তা সৃষ্টি ও কর্মসংস্থানের সুযোগ সৃষ্টির মাধ্যমে ক্ষুধা ও দারিদ্র্যমুক্ত স্বপ্নের সোনার বাংলা গড়া এবং প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে ২০৪১ সালে শিল্পসমৃদ্ধ স্মার্ট বাংলাদেশ বিনির্মাণে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রেখে চলেছে।’ 

অনুষ্ঠানে আমন্ত্রিত অতিথিদের মধ্যে বিভিন্ন উদ্যোক্তা সংগঠনের প্রতিনিধি, দেশী-বিদেশী বিভিন্ন চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রির প্রতিনিধি, আন্তর্জাতিক পরিমণ্ডলে বিভিন্ন দেশে বাংলাদেশের নবনিযুক্ত কমার্শিয়াল কাউন্সিলর, বাংলাদেশে নিযুক্ত বিভিন্ন দেশের কূটনীতিক ও উন্নয়ন সহযোগী সংস্থার প্রতিনিধি, বিভিন্ন প্রিন্ট ও ইলেক্ট্রনিক মিডিয়ার প্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন।

উন্মুক্ত আলোচনায় উপস্থিত অতিথিরা বিসিকের কার্যক্রম ও ভবিষ্যৎ পরিকল্পনা নিয়ে মতামত দেন। এরপর ‘কারুশিল্প পুরস্কার ১৪৩০’ প্রদান করা হয়।

এ বছর শ্রেষ্ঠ কারুশিল্পী হিসেবে শোলা শিল্পের জন্য কারুরত্ন পুরস্কার পেয়েছেন ঝিনাইদহের গোপেন্দ্র নাথ চক্রবর্ত্তী। বিজয়ী প্রত্যেককে পুরস্কার হিসেবে সনদপত্র, ক্রেস্ট এবং শ্রেষ্ঠ কারুশিল্পীকে (কারুরত্ন) ৫০ হাজার টাকা ও দক্ষ কারুশিল্পীদের (কারুগৌরব) প্রত্যেককে ৩০ হাজার টাকার চেক দেওয়া হয়।

অনুষ্ঠানে হস্ত ও কারুশিল্প পণ্যের প্রদর্শনীর ব্যবস্থা ছিল। যেখানে জামদানি, শতরঞ্জি, শীতলপাটি, পাটজাত, মণিপুরী শাড়ি, চামড়াজাত, খাদ্যজাত, বাঁশ-বেতজাত পণ্যের ১৫টি স্টলে বিসিকের উদ্যোক্তারা তাদের উৎপাদিত পণ্য প্রদর্শন করেন।

বিজ্ঞপ্তি/ইসরাত চৈতী/

ঈদের আগমুহূর্তে জমজমাট ওয়ালটন ফ্রিজের বিক্রি

প্রকাশ: ১৪ জুন ২০২৪, ১১:২৫ এএম
আপডেট: ১৪ জুন ২০২৪, ১২:১৯ পিএম
ঈদের আগমুহূর্তে জমজমাট ওয়ালটন ফ্রিজের বিক্রি
ফ্রিজ কিনতে রাজধানীর এক ওয়ালটন প্লাজায় ক্রেতাদের উপচে পড়া ভিড়। ছবি: বিজ্ঞাপন

দুয়ারে ঈদুল আজহা, কোরবানির ঈদ। সাধারণ প্রয়োজনের পাশাপাশি কোরবানির মাংস সংরক্ষণের জন্য এই সময়ে ফ্রিজ কেনেন ক্রেতারা। তাই সারা দেশে জমে উঠেছে ওয়ালটন ফ্রিজের বিক্রি। সেরা দামে সেরা মানের ফ্রিজ কিনতে ঈদের আগমুহূর্তে ওয়ালটন শোরুমগুলোতে ভিড় করছেন ক্রেতারা। 

রাজধানীসহ খুলনা, রংপুর, সিলেট, রাজশাহী, চট্টগ্রাম, বরিশাল ও ময়মনসিংহ বিভাগের বিভিন্ন অঞ্চলে নিয়োজিত ওয়ালটনের বিক্রয় প্রতিনিধি ও পরিবেশকদের কাছ থেকে ব্যাপক হারে ফ্রিজ বিক্রির খবর জানা গেছে। তারা জানান, প্রতিবছরের মতো এবারও কোরবানির ঈদকে ঘিরে ব্যাপক বিক্রি হচ্ছে ওয়ালটন ফ্রিজ। দেশব্যাপী ওয়ালটন শোরুমে প্রতিদিনই বাড়ছে ক্রেতাদের ভিড়। 

ওয়ালটন রেফ্রিজারেটরের চিফ বিজনেস অফিসার তাহসিনুল হক বলেন, ‘ঈদের মৌসুমে দেশে প্রতিবছরই রেফ্রিজারেটর ও ফ্রিজারের চাহিদা বাড়ে। বাংলাদেশে ঈদের সময়টাকে ফ্রিজ বিক্রির প্রধান মৌসুম হিসেবে বিবেচনা করা হয়। প্রতিবছরের মতো এ বছরও ঈদের মৌসুমে ক্রেতা চাহিদার শীর্ষে রয়েছে ওয়ালটন ফ্রিজ। এর অন্যতম প্রধান কারণ ওয়ালটন ফ্রিজের সর্বোচ্চ সংখ্যক ডিজাইন ও মডেল, ৭৫ শতাংশ পর্যন্ত বিদ্যুৎ সাশ্রয়ী, টেকসই গুণগতমান, সর্বাধুনিক প্রযুক্তি ও ফিচার, দেশব্যাপী বিস্তৃত সার্ভিস সেন্টার থেকে দ্রুত ও সর্বোত্তম বিক্রয়োত্তর সেবার নিশ্চয়তা।’

তিনি জানান, সব শ্রেণি-পেশার গ্রাহকের চাহিদা অনুযায়ী ৫০ লিটার থেকে শুরু করে ৬৬০ লিটার পর্যন্ত ধারণক্ষমতার শত শত ডিজাইন ও মডেলের ফ্রিজ রয়েছে আমাদের। এবারের ঈদে ক্রেতাদের জন্য বিশেষ চমক হিসেবে ওয়ালটন বাজারে ছেড়েছে অর্ধশতাধিক সর্বাধুনিক ও উদ্ভাবনী ফিচারের বেশ কিছু নতুন মডেলের ফ্রিজ। এর মধ্যে রয়েছে ৬৪৬ লিটার ধারণক্ষমতার মাল্টি-কালার ডিজাইনের সাইড বাই সাইড রেফ্রিজারেটর, নাইন-ইন-ওয়ান কনভার্টিবল মোডসমৃদ্ধ ৬৬০ লিটার ফ্রে ডোর রেফ্রিজারেটর, ইউরোপিয়ান ডিজাইনের ৩৪৩ লিটার অত্যাধুনিক নন-ফ্রস্ট রেফ্রিজারেটর, ৩৩৪ লিটার ভার্টিক্যাল ফ্রিজার, কনভার্টিবল মোডের ২৫৫ লিটার চেস্ট ফ্রিজার, চকোলেট কুলারসহ বেশ কিছু নতুন মডেলের রেফ্রিজারেটর। নান্দনিক ডিজাইনে তৈরি ওয়ালটনের বিশ্বমানের এসব ফ্রিজ প্রয়োজন মিটানোর পাশাপাশি বাড়িয়ে দেবে ঘরের আভিজাত্য।  

জানা গেছে, ঈদুল আজহা উপলক্ষে সারা দেশে চলছে ওয়ালটন ফ্রিজের ‘ননস্টপ মিলিয়নিয়ার’ ক্যাম্পেইন। এর আওতায় ঈদে ওয়ালটনের যেকোনো মডেলের ফ্রিজ কিনে ক্রেতারা পাচ্ছেন মিলিয়নিয়ার হওয়ার সুযোগ। এখন পর্যন্ত দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে ওয়ালটন পণ্য কিনে মিলিয়নিয়ার হয়েছেন ৪০ জন ক্রেতা। প্রত্যেকেই পেয়েছেন ১০ লাখ টাকা। এ ছাড়াও রয়েছে কোটি কোটি টাকার নিশ্চিত উপহার। এবারের ঈদে ফ্রিজের বাজারে ব্যাপক সাড়া ফেলেছে ওয়ালটনের এই মিলিয়নিয়ার ক্যাম্পেইন।

বিজ্ঞপ্তি/সাদিয়া নাহার/

শেষ হলো ইউআইটিএসের 'গুগল ক্রাউডসোর্স এবং মেশিন লার্নিং কর্মশালা

প্রকাশ: ১৪ জুন ২০২৪, ১১:০০ এএম
আপডেট: ১৪ জুন ২০২৪, ১১:০০ এএম
শেষ হলো ইউআইটিএসের 'গুগল ক্রাউডসোর্স এবং মেশিন লার্নিং কর্মশালা
ছবি: বিজ্ঞাপন

ইউনিভার্সিটি অব ইনফরমেশন টেকনোলজি অ্যান্ড সায়েন্সেস (ইউআইটিএস) ইনস্টিটিউশনাল কোয়ালিটি অ্যাসুরেন্স সেল (আইকিউএস) এবং কম্পিউটার বিজ্ঞান ও প্রকৌশল বিভাগ (সিএসই) কর্তৃক যৌথভাবে আয়োজিত ‘গুগল ক্রাউডসোর্স এবং এক্সপ্লোর মেশিন লার্নিং’ কর্মশালা সিরিজটির সফলভাবে পরিসমাপ্তি হয়েছে। 

ওয়ার্কশপে অংশগ্রহণকারী ১০০ জনের মধ্যে আটজন লেভেল সম্পন্ন করে ভালো ফল করে সার্টিফিকেট পেয়েছেন। 

কর্মশালার নেতৃত্বে ছিলেন ভারতের প্রখ্যাত ডেটা সায়েন্টিস্ট কাব্য বিস্ত এবং ভারতের বেঙ্গালুরুর গুগল ক্রাউডসোর্স কমিউনিটি পরিচালনাকারী সারিতা বেহেরা। 

এই কর্মশালাগুলো সবাইকে গুগল ক্রাউডসোর্সকে আরও ভালোভাবে বুঝতে সহায়তা করেছিল। এটি এমন একটি প্ল্যাটফর্ম যা গুগলের পণ্য এবং পরিষেবাগুলোকে আরও উন্নত করতে কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা ব্যবহার করে। 

মেশিন লার্নিংয়ের ক্ষেত্রে আজীবন শেখার এবং ক্যারিয়ারের অগ্রগতির প্রতি তাদের প্রতিশ্রুতি এই কৃতিত্বের দ্বারা প্রদর্শিত হয়।

বিজ্ঞপ্তি/সাদিয়া নাহার/

ভারতের গ্লেনিগেলস হাসপাতালের সঙ্গে ইস্টার্ন ব্যাংকের চুক্তি

প্রকাশ: ১৩ জুন ২০২৪, ০৫:৫৮ পিএম
আপডেট: ১৩ জুন ২০২৪, ০৫:৫৮ পিএম
ভারতের গ্লেনিগেলস হাসপাতালের সঙ্গে ইস্টার্ন ব্যাংকের চুক্তি
ছবি : বিজ্ঞপ্তি

ভারতের গ্লেনিগেলস হাসপাতালের সঙ্গে চুক্তি করেছে ইস্টার্ন ব্যাংক পিএলসি (ইবিএল)।

সম্প্রতি ঢাকায় ব্যাংকের হেড অব বিজনেস সৈয়দ জুলকার নায়েক ও গ্লেনিগেলস হাসপাতালের চিফ সেলস অফিসার গুরু প্রসাদ নিজ নিজ প্রতিষ্ঠানের পক্ষে চুক্তিতে স্বাক্ষর করেন।

চুক্তির অধীনে ভারতের গ্লেনিগেলস হাসপাতাল ইবিএল কার্ডধারীদের বিশেষ সুবিধা দেবে। বাংলাদেশে মেডিসফেয়ার তাদের যমুনা ফিউচার পার্কের অফিসে গ্লেনিগেলস হাসপাতালে তাদের ইনফরমেশন সেন্টার চালুর মাধ্যমে এ দেশে সেবা দিচ্ছে।

অনুষ্ঠানে ইবিএল রিটেইল অ্যালায়েন্সের সিনিয়র ম্যানেজার ফারজানা কাদের ও ম্যানেজার শেখ আসিফ সৌম্য এবং গ্লেনিগেলস হাসপাতালের কান্ট্রি মার্কেটিং ম্যানেজার মো. আসাদুজ্জামানসহ অন্যরা উপস্থিত ছিলেন।

বিজ্ঞপ্তি/সালমান/

ঈদে ফ্যান্টাসি কিংডমের নতুন আকর্ষণ টর্নেডো ৩৬০ ভিআর

প্রকাশ: ১৩ জুন ২০২৪, ০৫:৪৬ পিএম
আপডেট: ১৩ জুন ২০২৪, ০৫:৪৬ পিএম
ঈদে ফ্যান্টাসি কিংডমের নতুন আকর্ষণ টর্নেডো ৩৬০ ভিআর
টর্নেডো ৩৬০ ভিআর

ঈদ মানেই বাড়তি আনন্দ। ঈদ মানেই ফ্যান্টাসি কিংডমের বিশেষ আয়োজন। প্রতিবারই ঈদ উদযাপনের জন্য ফ্যান্টাসি কিংডম কমপ্লেক্স বিনোদন পিপাসুদের কথা চিন্তা করে, ভিন্ন রকম নতুন নতুন আয়োজন করে থাকে। তারই ধারাবাহিকতায় আসন্ন ঈদুল আজহায় ফ্যান্টাসি কিংডম কমপ্লেক্সে অত্যাধুনিক আন্তর্জাতিক মানসম্পন্ন তুরস্কে উদ্ভূত রাইড টর্নেডো ৩৬০ ভিআর সংযোজন করা হয়েছে।

টর্নেডো ৩৬০ ভিআর আনার মাধ্যমে দেশের বিনোদন খাতে নতুন দ্বার উন্মোচন হয়েছে।

বিস্ময়কর দৃশ্য, ডায়নোসর, হাই-স্পিড রেসিং বাস্তবে অনুভব করার সঙ্গে ৩৬০ ডিগ্রি রোটেশন রাইডটির রোমাঞ্চের মাত্রা আরও বাড়িয়ে দেবে।

টর্নেডো ৩৬০ ভিআর রাইডটিতে ব্যবহৃত হয়েছে ফাইবারগ্লাস শোল্ডার হারনেস; সঙ্গে রয়েছে অতিরিক্ত বেল্ট লক। যাতে নিরাপত্তায় কোনো ত্রুটি না থাকে। আবার ভিআর হেডসেট ৫.১ সাউন্ড সিস্টেমের মাধ্যমে তারা বাস্তবের মতো ছবি দেখতে ও শুনতে পাবে এই রাইডটিতে। 

সাত মিনিটব্যাপী চলমান এই রাইডটি দর্শনার্থীদের মনে বিশেষ দাগ কেটে যাবে বলে বিশ্বাস করা হচ্ছে। 

দুই যুগ ধরে ফ্যান্টাসি কিংডম দেশের দর্শনার্থীদের ভিন্নধর্মী বিনোদনের ব্যবস্থা করে আসছে। টর্নেডো ৩৬০ ভিআর তাদের এই প্রচেষ্টার আরেকটি সংযোজন।

ভার্চুয়াল জগতে বিনোদনের ভিন্ন মাত্রা যোগ করতে ফ্যান্টাসি কিংডমে এই নতুন রাইডের কোনো জুড়ি নেই। বিনোদনশিল্পে নতুন মাত্রা যোগ করার লক্ষে সবসময় কনকর্ড এন্টারটেইনমেন্ট কো. লি. পথিকৃত।

বিজ্ঞপ্তি/অমিয়/

এমআইটি লিডিং এজ ইন্টারন্যাশনাল স্টুডেন্ট কনফারেন্স শুরু

প্রকাশ: ১৩ জুন ২০২৪, ০৫:৩০ পিএম
আপডেট: ১৪ জুন ২০২৪, ১০:২৮ এএম
এমআইটি লিডিং এজ ইন্টারন্যাশনাল স্টুডেন্ট কনফারেন্স শুরু
ছবি: বিজ্ঞাপন

দেশের ভবিষ্যৎ তরুণদের বিশ্বমানের নাগরিকে পরিণত করতে এমআইটির ইন্টারন্যাশনাল স্টুডেন্ট কনফারেন্স বড় ভূমিকা রাখবে। বাংলাদেশের তরুণ শিক্ষার্থীদের মাঝেও ব্যাপক সাড়া জাগিয়েছে হেইলিবারি ভালুকা এবং যুক্তরাষ্ট্রের ম্যাসাচুসেটস ইনস্টিটিউট অব টেকনোলজির (এমআইটি) এই ইন্টারন্যাশনাল স্টুডেন্ট কনফারেন্স। 

মঙ্গলবার (১১ জুন) ময়মনসিংহ ভালুকার হেইলিবারির স্থায়ী ক্যাম্পাসে হেইলিবারি ভালুকা এবং এমআইটির যৌথ উদ্যোগে আয়োজিত পাঁচ দিনব্যাপি এমআইটি লিডিং এজ ইন্টারন্যাশনাল স্টুডেন্ট কনফারেন্সের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে এমনটাই জানান উপস্থিত বক্তারা। 

এমনকি ভবিষ্যতেও এ ধরনের আয়োজন অব্যাহত রাখতে হেইলিবারি ভালুকা কাজ করবে বলে আশা প্রকাশ করেন তারা।

এমআইটি লিডিং এজ ইন্টারন্যাশনাল স্টুডেন্ট কনফারেন্সের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ ড. মোহাম্মদ কায়কোবাদ। 

বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ময়মনসিংহ ১১ আসনের এমপি মোহাম্মদ আব্দুল ওয়াহেদ। 

এ ছাড়াও উপস্থিত ছিলেন হেইলিবারি ভালুকার ফাউন্ডিং হেড মাস্টার সাইমন ও’ গ্রেডি এবং এমআইটির তিনজন ফ্যাকাল্টি ও ছয়জন গ্র্যাজুয়েটস।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে ড. মোহাম্মদ কায়কোবাদ বলেন, ‘বিশ্বের নম্বর ওয়ান বিশ্ববিদ্যালয় এমআইটিকে অসংখ্য ধন্যবাদ এ ধরনের একটি প্রেসটিজিয়াস আয়োজনের কেন্দ্র হিসেবে হেইলিবারি ভালুকাকে বেছে নেওয়ার জন্য। আমাদের শিক্ষার্থীদেরকে কিভাবে উন্নত জীবন গড়ার স্বপ্নকে বাস্তবে পরিণত করতে হয় তার অনুপ্রেরণা দিতেই এমআইটির এই তিনজন ফ্যাকাল্টি মেম্বার এবং গ্র্যজুয়েটরা আজকে এখানে উপস্থিত রয়েছেন।’

হেইলিবারি ভালুকার ফাউন্ডিং হেডমাস্টার সাইমন ও’ গ্রেডি বলেন, ‘বিশ্বের নম্বর ওয়ান বিশ্ববিদ্যালয় এমআইটিকে বাংলাদেশে স্বাগত জানাতে পেরে আমরা গর্বিত। আট হাজার মাইল পথ পাড়ি দিয়ে এমআইটির ফ্যাকাল্টি মেম্বার এবং গ্র্যজুয়েটরা আসছে হ্যালিবারি ক্যাম্পাসে। তারা যে বাংলাদেশে এ ধরনের একটি আন্তর্জাতিক স্টুডেন্ট কনফারেন্স করতে আগ্রহ দেখিয়েছে এ জন্য আমরা তাদের প্রতি আন্তরিকভাবে কৃতজ্ঞ। এ ধরনের একটি আন্তর্জাতিক আয়োজনে সহযোগীতার জন্য ধন্যবাদ জানাচ্ছি সাউথইস্ট ব্যাংক, ইউনাইটেড কমার্শিয়াল ব্যাংক, বার্জার পেইন্টস এবং পিএফইসি গ্লোবালকে।’

তিনি আরও বলেন, ‘হেইলিবারি ভালুকা হবে এমন একটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান যেখানে অভিজ্ঞ শিক্ষক এবং শিক্ষার্থীর যৌথ অবদানেই গড়ে উঠবে এক এক জন ভবিষ্যৎ নেতা।’ 

বিশ্বের নম্বর ওয়ান বিশ্ববিদ্যালয় এমআইটি এবং হেইলিবারি ভালুকার এই যৌথ অগ্রণী উদ্যোগ শিক্ষার্থীদের নতুন কিছু শেখা এবং অভিজ্ঞতা তৈরিতে উল্লেখযোগ্য অবদান রাখবে বলেও আশা প্রকাশ করেন হেডমাস্টার সাইমন।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্যে ভালুকার ১১ আসনের এমপি আব্দুল ওয়াহেদ জানান, ভালুকায় হেইলিবারির মত আন্তর্জাতিকমানের বোর্ডিং স্কুল প্রতিষ্ঠিত হওয়ায় তিনি গর্বিত। হেইলিবারির আন্তর্জাতিকমানের শিক্ষক ও পরিবেশ আন্তর্জাতিক মানের শিক্ষার্থী ও ভবিষ্যৎ নেতৃত্ব গড়ে তুলতে অগ্রণী ভূমিকা রাখবে বলেও আশা প্রকাশ করেন এমপি ওয়াহিদ। বিশ্বের নম্বর ওয়ান বিশ্ববিদ্যালয় এমআইটির সঙ্গে এ ধরনের একটি আন্তর্জাতিক মানের স্টুডেন্ট কনফারেন্স আয়োজন তাকে মুগ্ধ ও গর্বিত করেছে বলেও জানান তিনি। 

এ ছাড়াও অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য রাখেন এমআইটির ফ্যাকাল্টি মেম্বার ক্রিস্টোফার জেমস মায়ের, ক্রিস্টিয়ান ইভান কার্ডোজো এভিলেস এবং এডওয়ার্ড জন মোরিয়ার্টি।

সম্পূর্ণ আবাসিক পরিবেশে আয়োজিত এই ইন্টারন্যাশনাল স্টুডেন্ট কনফারেন্সে অংশ নিয়েছেন এমআইটির চারজন ফ্যাকাল্টি মেম্বার এবং ছয়জন এমআইটি গ্র্যাজুয়েট। তাদের তত্ত্বাবধানেই ইঞ্জিনিয়ারিং এবং উদ্ভাবনী শক্তিকে উন্নত স্তরে প্রসারিত করা এবং একটি কার্যকর সমাধানের লক্ষে পৌঁছে দেওয়াসহ বিভিন্ন অভিজ্ঞতা অর্জন করতে পারবেন বাংলাদেশ, ভারত ও যুক্তরাজ্য থেকে নির্বাচিত ১১-১৪ বছর বয়সী ১০০ জন শিক্ষার্থী।

কনফারেন্সে অংশ নিয়ে শিক্ষার্থীরা আন্ডার ওয়াটার রোবোটিক্স, এআই-পওয়ারড হুইলচেয়ার এবং হ্যান্ডহেল্ড পলুউশন ম্যাপিং ডিভাইসসহ বিভিন্ন উদ্ভাবনীমূলক কার্যক্রম এবং সেগুলোর পরিচালনা সম্পর্কেও হাতে কলমে জ্ঞান অর্জন করতে পারবে। 

এ ছাড়াও বিখ্যাত হ্যারি পটার সিরিজের আন্ডার ওয়াটার হ্যারি পটার কুইডিচ প্রতিযোগিতায়ও অংশ নেওয়ার একটি অনন্য সুযোগ থাকছে অংশগ্রহণকারীদের জন্য।

যুক্তরাষ্ট্রের বোস্টনে অবস্থিত ম্যাসাচুসেটস ইনস্টিটিউট অব টেকনোলজির এজারটন সেন্টারের সহযোগিতায় আয়োজিত এই ইন্টারন্যাশনাল কনফারেন্স চলবে ১৫ জুন ২০২৪ তারিখ পর্যন্ত। 

কনফারেন্সের শেষ দিনে অংশগ্রহণকারী সকলকে এমআইটির এজগারটন সেন্টারের পক্ষ থেকে সার্টিফিকেট প্রদান করা হবে। 

বিজ্ঞপ্তি/সাদিয়া নাহার/অমিয়/